জীবনের বিভিন্ন ধাপে কী কী ধরনের বিনিয়োগ করা উচিত?

MarketDeal24.Com – আপনার করা বিনিয়োগ কি বয়স অনুসারে ঠিক আছে? বিনিয়োগের কৌশলগুলো জীবনের প্রতিটি ধাপ এবং বয়সের সাথে খাপ খায় না। আপনার ব্যক্তিত্ব জীবনের বিভিন্ন স্তরে পরিবর্তিত হয়। ভিন্ন মানুষ, ভিন্ন অর্থনৈতিক পরিস্থিতি। এসবের সাথে তাল মিলিয়ে আপনার বিনিয়োগের লক্ষ্যও পরিবর্তিত হয়।

চলুন দেখা যাক জীবনের কোন পর্যায়ে কোন ধরনের বিনিয়োগ কার্যকরী।

বয়স যখন বিশের কোঠায়:

এই সময়ে অধিকাংশ মানুষের পড়াশোনা শেষ হয়ে যায়। অনেকের অনেক ধরনের ঋণ হয়ে থাকে এ সময়ে। সেসব পরিশোধের একটি আলাদা চাপ থাকে। আপনার অর্থনৈতিক অবস্থা যেমনই থাকুক না কেন, এই সময়টাই বিনিয়োগের জন্য সর্বোত্তম সময়। যত দ্রুত বিনিয়োগ করবেন, ততই ভালো। বিনিয়োগে চক্রবৃদ্ধি সুদের সুবিধা ব্যবহারের চেষ্টা করুন। এই সময়ে যা বিনিয়োগ করবেন তাই সর্বোচ্চ প্রবৃদ্ধির মুখ দেখবে।

বয়স যখন ত্রিশের কোঠায়:

এর মধ্যে অনেকের সংসার হয়ে গেছে। অনেকে বড়সড় ঋণ নিয়ে সেগুলো পরিশোধ করছেন ধীরে ধীরে। ত্রিশের কোঠায় বয়স হওয়ায় এখন আপনার খরচ অনেক বেড়ে গেছে। টুকটাক কিছু অভিজ্ঞতাও হয়েছে জীবনে। এখন মূল উপার্জনের ১০% থেকে ১৫% পর্যন্ত সঞ্চয় করে থাকেন। এর মধ্যেই তখন চেষ্টা থাকবে বিনিয়োগ বাড়িয়ে আরো বেশি অর্থ সঞ্চয় সম্ভব হয়।

Forexmart

বয়স যখন চল্লিশের কোঠায়:

এ সময়ে ধরে নেয়া যায় সামান্য উপার্জনের একটি ক্যারিয়ার রয়েছে, এবং ক্যারিয়ারের মাঝবিন্দুতে অবস্থান করছেন আপনি। তখন আপনার অর্থনৈতিক লক্ষ্য যাই থাকুক না কেন অবসর গ্রহণের ব্যাপারটি আপনার সকল পরিকল্পনাকে প্রভাবিত করবে। তখন অনেকেই শেয়ার বাজারে বিনিয়োগের ব্যাপারে মনোনিবেশ করেন।

বয়স যখন পঞ্চাশ এবং ষাটের কোঠায়:

এই সময়ে এসে কিছুতেই নিজের ফোকাস হারালে চলবে না। বয়স কম থাকতে হয়তো যেসব শেয়ারের চাহিদা বেশি ছিল সেগুলোই কিনেছিলেন। কিন্তু শেষ বয়সে এসে রিটায়ারমেন্ট সেভিংসের কথা চিন্তা করে আপনাকে বিনিয়োগ করতে হবে। মনোনিবেশ করতে হবে কম আয়ের অথচ স্থিতিশীল ফান্ডের দিকে। অন্যথায় আপনার সমগ্র পুঁজি ঝুঁকির মধ্যে পড়বে। এ সময়ে আপনার সম্পদের তুলনামূলক বিচার বিশ্লেষণও করার উৎকৃষ্ট সময়। তবে অবশ্যই অবসর গ্রহণের ক্ষেত্রে পেশাদার কারো পরামর্শ গ্রহণ করুন।

PrimeXBT – ক্রিপ্টো ট্রেডিংয়ের জগতে এক অনন্য ব্রোকার

leave a reply