Crypto Trading Bangladesh| অভিজ্ঞতা ছাড়াই ক্রিপ্টো কারেন্সি থেকে অর্থ উপার্জন করার উপায় সমূহ

Crypto Trading - PrimeXBT Crypto Trading - PrimeXBT

Crypto Trading Bangladesh – বর্তমান আধুনিক বিশ্বের এক পরিচিত নাম ক্রিপ্টোকারেন্সি। এটার সম্পর্কে কম বেশি সবাই কিছুটা ধারণা রাখেন। বড় বড় অর্থনীতিবিদদের মতে আজ থেকে কয়েক বছর পর মানুষ বাহ্যিক অর্থ থেকে মুখ ফিরিয়ে নিবে, সবাই ক্রিপ্টোমুখী হবে।

মানুষ তার টাকা কোথায় বিনিয়োগ করলে প্রথম যে জিনিসটার কথা চিন্তা করে সেটা হলো তার অর্থের নিরাপত্তা।

আর বর্তমান এই অর্থনৈতিক মন্দার মধ্যে বেশীর ভাগ ব্যাংকগুলো দেওলিয়া হওয়ার পথে আছে, সেখানে ক্রিপ্টোর মত ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম দিতে পারে আপনার অর্থের নিরাপত্তা এবং সহজেই মুনাফা লাভ করার সুযোগ।

ক্রিপ্টোকারেন্সি থেকে অর্থ উপার্জন করার কয়েকটি পদ্ধতি নীচে তুলে ধরা হলো ঃ

Forexmart

১. কিনে জমিয়ে রাখা – Buy And Hold

ক্রিপ্টোকারেন্সিতে বিনিয়োগ করা বা অর্থ উপার্জন করার ক্ষেত্রে যে পদ্ধতি সবচেয়ে পরিচিত তা হলো কিনে জমিয়ে রাখা। শেয়ার বাজারে আপনি একটা সম্পদ বা স্টক কিনেন, সেটার চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ার জন্য অপেক্ষা করেন এবং একসময় বিক্রি করে অর্থ উপার্জন করেন। ক্রিপ্টোকারেন্সি এর ক্ষেত্রেও অনেকটা একই রকম হয় কিন্তু এইখানে আপনি কিনে অপেক্ষা করতে পারেন যতক্ষণ পর্যন্ত না আপনার ক্রয় করার মূল্যের থেকে কয়েক গুন বেশি মূল্য বৃদ্ধি না পায়। এটা ক্রিপ্টোকারেন্সি তে অর্থ উপার্জন করার সবচেয়ে সহজ পদ্ধতি।

উদাহরন স্বরূপ, ২০১৩ সালে বিটকয়েনের মূল্য ছিল $13 এবং এখন পর্যন্ত বিটকয়েনের সর্বোচ্চ মূল্য হয়েছে ২০১৮ সালে $20,000। এর মানে আপনি যদি ২০১৩ সালে $200 এর বিটকয়েন কিনে জমিয়ে রাখেন,সর্বোমোট ১৫টি বিটকয়েন পেইয়েছেন সেটার মূল্য ২০১৮ সালে $300,000 করে বিক্রি করতে পেরেছেন আপনি। যা কিনা আপনার ক্রয়মূল্যের ১৫০০ গুন। এরকম লাভ সাধারনত স্টক মার্কেটে কখনোই শুনতে পাবেন না। এর মাধ্যমে বুঝা যায় ক্রিপ্টোকারেন্সি কতটা শক্তিশালী।

মার্কেটে আপনি অনেক ধরনের কয়েন দেখতে পারেন কিন্তু বিটকয়েন, লাইটকয়েন, ইথিওরিয়াম, রিপল এই চারটি সবচেয়ে বিশ্বাসযোগ্য কয়েন। এবং সে ক্ষেত্রে আপনি PrimeXBT ব্রোকারের মাধ্যমে আপনার কয়েন গুলো জমা রাখতে পারেন একটি একাউন্ট খোলার মাধ্যমে এবং এই ব্রোকার সম্পর্কে আর বিস্তারিত আলোচনা করবো আমাদের পরবর্তি পোস্টে ।

২. জমিয়ে রাখার মাধ্যমে অর্থ উপার্জন – hold for dividends

উপরে উল্লেখিত কয়েনগুলোর ক্ষেত্রে আপনি একটি নির্দিষ্ট মূল্যে কয়েন কিনে সেই মূল্যের থেকে বেশি মূল্যে বিক্রি করে অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। কিন্তু এমন কিছু কয়েন আছে যেগুলো শুধু জমিয়ে রেখেই আপনি অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। এখানে আপনার কয়েন কিনতে হবে না বা কয়েনের মালিক ও আপনি না। আপনি শুধু কয়েন গুলো আপনার একাউন্টে জমিয়ে রাখবেন। এতেই আপনি অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

এরকম কয়েকটি কয়েন হলো Neo, Kucoin, CryptoBridge, Neblio, KOMODO .

৩. কয়েন উৎপাদন – Mining

ক্রিপ্টোকারেন্সি দিয়ে কিভাবে অর্থ উপার্জন করবেন তা বিবেচনা করার সময় যে একটি পদ্ধতি সর্বদা সামনে আসে তা হলো মাইনিং বা কয়েন উৎপাদন। ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইনিং দিয়ে অর্থ উপার্জন করার সেরা উপায়গুলির মধ্যে একটি হলো altcoins।

তবে এক্ষেত্রে একমাত্র সম্ভাব্য সমস্যা হচ্ছে কম্পিউটার সরঞ্জামগুলিতে বিনিয়োগ। যদিও আপনি অত্যন্ত গতিশীল হার্ডওয়্যার ছাড়াই ক্রিপ্টোকারেন্সি মাইনিং করতে পারেন, তবে যত ভাল হার্ডওয়্যার, এটি আপনার জন্য তত বেশি কয়েন তৈরি করতে পারবে এবং আপনার অর্থ উপার্জনের সম্ভাবনা তত বৃদ্ধি পাবে। কম্পিউটারগুলি জটিল গাণিতিক সমস্যাগুলি সমাধান করে মাইনিংয়ের কাজ করে এবং যখন তারা এগুলি সমাধান করে, এবং এর ফলে আপনাকে ক্রিপ্টোকারেন্সি পুরস্কার হিসেবে দেওয়া হবে।

আরও ক্রিপ্টোকারেন্সি তৈরি হওয়ার সাথে সাথে সমস্যাগুলি আরো কঠিন থেকে কঠিন তর হয়ে যায় এবং তাই আপনার যদি উচ্চ গতিশীল কম্পিউটার ব্যবস্থা না থাকে তবে বিষয়গুলি সমাধান করতে দীর্ঘ সময় নিতে পারে। এগুলার জন্য আপনার কুলিং ইউনিট, অতিরিক্ত বিদ্যুতের আপগ্রেড এবং আরও অনেক কিছু প্রয়োজন হতে পারে।

এছাড়াও অনেক ব্যক্তি একই সময়ে একই সমস্যা সমাধানের চেষ্টা করছেন। যদি আপনার কম্পিউটারটি খুব মন্থর হয় এবং অন্য কেউ প্রথমে সমস্যাগুলি আপনার আগেই সমাধান করে তবে আপনি কিছুই পাবেন না, তাই একটি উচ্চতর সিস্টেমে বিনিয়োগ করা খুবই প্রয়োজন।

৪. দিনের ট্রেডিং – Day trading

এই পদ্ধতিটি হলো তাদের জন্য যারা ফরেক্স মার্কেট বা শেয়ার মার্কেটে অভিজ্ঞ এবং নিয়মিত। যারা দৈনিক টেকনিক্যাল চার্ট দেখে ট্রেডিং করেন তারা এই পদ্ধতিটি ব্যাবহার করতে পারেন। এই পদ্ধতি তে আপনি কয়েন কিনে ওই দিনেই বিক্রি করে দিতে পারেন। ক্রিপ্টোকারেন্সির মূল্য যেহেতু প্রচুর পরিবর্তিত হয় সেক্ষেত্রে আপনি বেশিক্ষন অপেক্ষা না করে অল্প সময়েই চার্ট পর্যালোচনা করে ভালো পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতে পারবেন।

তবে যারা একেবারেই অনভিজ্ঞ এবং চার্ট সম্পর্কে ধারণা নেই তারা এই পদ্ধতিটি না ব্যাবহার করাই ভালো। সেক্ষেত্রে আপনি উপরে উল্লেখিত পদ্ধতি গুলো ব্যাবহার করতে পারেন। তবে আপনারা ক্রিপ্টোকারেন্সি ট্রেডিং অথবা জমিয়ে রেখে লাভবান হতে চাইলে PrimeXBT ব্রোকারটিতে একটি ফ্রি একাউন্ট খুলে লেনদেন শুরু করতে পারেন ।

Crypto Trading

Bitcoin ২০২১ এর আগেই এক নতুন উচ্চতায় পৌঁছবে; প্রত্যাশা ক্রিপ্টো ট্রেডারদের

৫ Comments

  • বুধবার বাজারে লক্ষ্য রাখার মতো ৩ টি বিষয় | ৬ই মে, ২০২০
    মে ০৬, ২০২০
  • Foreign Exchange Market Bangla | এই সপ্তাহের বাজারে লক্ষ্য রাখার মতো ৫ টি বিষয় | ১১ই মে - ১৫ই মে, ২০২০
    মে ১০, ২০২০
  • এই সপ্তাহের বাজারে লক্ষ্য রাখার মতো ৫ টি বিষয় | ১১ই মে - ১৫ই মে, ২০২০
    মে ১০, ২০২০
  • PrimeXBT - ক্রিপ্টো ট্রেডিংয়ের জগতে এক অনন্য ব্রোকার
    জুন ২৭, ২০২০

leave a reply